ফসলি অ্যাপ কৃষকের যাবতীয় সমস্যার তাৎক্ষণিক সমাধান দিবে। বাংলাদেশের উপকারী অ্যাপ।


হ্যালো বন্ধুরা কি খবর সবার ভালো আছেন?
কেউ যদি আমাকে প্রশ্ন করে যে স্বাধীনতার ৪৮ বছর এই সময় ভেতরে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় উন্নয়ন কোনটা অনেকগুলো ক্ষেত্রে বলা যাবে আমি অগ্রাধিকার দেব কৃষি ক্ষেত্রের উন্নয়ন।
অর্থাৎ আমাদের ফসল মূল ফসল ধান তার উৎপাদন প্রায় তিন সাড়ে তিন গুণ বৃদ্ধি পেয়েছে।
যে কারণে কোন মানুষ না খেয়ে নেই কৃষক তার শ্রম মেধা কৃষি বিজ্ঞানী তাদের গবেষণা এবং সম্প্রসারণ বিভাগের কল্যাণে সে সমসর্তর গবেষণার ফলাফল মাঠ পর্যায়ে আসার ফলে এখন যেখানে আগে একটা ফসলের বেশি পাওয়া যেত না এখন সেই জমিতে কৃষক তিনটি চারটি ফসলও করে।
এবং সারা দেশজুড়ে ফসলের একটি ব্যাপক উন্নয়ন ঘটেছে রকমারি ফসল মাঠজুড়ে কৃষকের রয়েছে এগুলো সবই প্রযুক্তির কল্যাণে কাজগুলো হয়েছে।
এখন আধুনিক কৃষি স্মার্ট কৃষি এর যুগ সারা পৃথিবী এগিয়ে যাচ্ছে প্রযুক্তির উৎকর্ষে আধুনিক কৃষির সর্বশেষ সংযোজন নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে।
বাংলাদেশ সে ক্ষেত্রে কেবল সিউড়িতে পা রেখেছে অর্থাৎ আমি আইওটি বেজ ইন্টারনেট বেজ অথবা এ আই আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বলি বা কৃত্রি বুদ্ধিমত্তা বলি বা ইনফরমেশনের এন্ড টেকনোলজির কথা বলি যার ফলে কৃষকের হাতের মুঠোয় একটি ছোট্ট ফোনের মাধ্যমে এই প্রযুক্তি গুলো চলে আসছে।
সরকারি ভাবে বেশ কিছু অ্যাপস বা কৃষি প্রযুক্তি তৈরি করা হয়েছে মাঠ পর্যায়ে সেগুলি কতটুকু কাজ হচ্ছে আমরা ততটা স্বচ্ছ ধারণা নিই।
সাম্প্রতিক সময়ে বেসরকারি একটি সংগঠন কৃষি নিয়ে যারা কাজ করেন এসিআই তারা কৃষকের জন্য এই জাতীয় ফসলি নামে একটা অ্যাপ তৈরি করেছে যেটি হাতের মুঠোয় স্মার্টফোন থেকে সব ফসলের নানা ধরনের তথ্য পাবেন।
এবং সেই অনুপাতে এবং সেই অনুযায়ী কাজ করলে তার উৎপাদন শীলতা যেমন বাড়বে প্রায়ই কমে আসবে সে আকরাম তথ্য পাবে পোকামাকড় আক্রমণ সংক্রান্ত তথ্য পাবে বৃষ্টি ঝড় বাদল আসবে কিনা সেগুলো পাবে ওয়েদার টেম্পারেচার আবহাওয়া সবকিছু।
এটি সত্যি নিঃসন্দেহে একজন প্রগতিশীল তরুণ এবং সচেতন শিক্ষিত কৃষক এর জন্য অসম্ভব রকমের একটা ক্ষমাই তো করার একটা কৌশল সেই জায়গা থেকে আজকে এই অ্যাপ টি কিভাবে কাজ করছে???
তো চলুন অ্যাপ টি কিভাবে কাজ করে সেটি দেখে আসা যাক।
কৃষকের কৃষি সেবায় নতুন সম্ভাবনা ‘ফসলি’ অ্যাপস
বাংলাদেশের অর্থনীতির প্রধান হাতিয়ার কৃষি। ক্ষুদ্র চাষী, কৃষি উপকরণ ব্যবসায়ী এবং কৃষি সম্প্রসারণ কর্মতর্কাদের সাথে, নির্ভরযোগ্য ও সময়োপযোগী তথ্যসেবা পৌঁছে দিতে, সরকারি পৃষ্ঠপোষকতায় ‘ফসলি (Fosholi)’ নামে একটি বিশেষ অ্যাপস তৈরি করা হয়েছে। যা কৃষকের সব ধরনের সমস্যার তাৎক্ষণিক সমাধান দিতে প্রস্তুত।
কৃষি সংক্রান্ত যে কোন সমস্যার সমাধানে, মোবাইলে এসএমএস ও ফোন কলের মাধ্যমেও পাওয়া যাবে ফসলি’র সেবাসমূহ। ‘ফসলি’ অ্যাপস ব্যবহারের মাধ্যমে কৃষকের জমি-ভিত্তিক শস্যের উপযোগিতা, বিজ্ঞানসম্মত চাষাবাদ পদ্ধতি, পোকামাকড় ও রোগের আক্রমণ বিষয়ক সতর্ক সংকেত, চাষকৃত শস্যের বাজারদর এবং কৃষি কাজের সাথে জড়িত সকল প্রধান বিষয় সম্পর্কিত তথ্য পাওয়া যাবে।
এছাড়াও স্যাটেলাইট ইমেজের মাধ্যমে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে, আবহাওয়ার বাস্তবভিত্তিক পূর্বাভাসও দিচ্ছে ফসলি অ্যাপস।
কৃষকদের কাছে তাদের চাহিদা মাফিক তথ্য সহজে পৌঁছে দিতে ফসলিতে রয়েছে-
১. নিজ নিজ এলাকা ও মাটির গুনাগুণের ভিত্তিতে উপযোগী ফসল নির্বাচন বিষয়ক সেবা।
২. ফসল উৎপাদন এবং রোগবা্লাই ও পোকামাকড়ের আক্রমণ বিষয়ক সঠিক পূর্বাভাস ও তথ্য সেবা।
৩. নিকটস্থ হাট-বাজার, শস্যের বাজারদর ও ফসল সংরক্ষণ বিষয়ক পরামর্শ।

৪. দুর্যোগজনিত কারণে ফসলের ক্ষয়ক্ষতি হ্রাসের লক্ষ্যে পূর্বাভাস ও সতর্কসংকেত প্রদান।
৫. বিশেষজ্ঞ কৃষিবিদদের সহযোগিতায় চাষাবাদ সম্পর্কিত বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর ও পরামর্শ সেবা।
‘ফসলি’ অ্যাপস ব্যবহারের মাধ্যমে এদেশের কৃষকেরা তাদের্ উৎপাদনশীলতা ও আয় বৃদ্ধিতে আধুনিক ও উন্নত হবেন, এই আশা সংশ্লিষ্ট সকলের।
তো চলুন দেখে আসি আপনি কিভাবে ডাউনলোড করা যায়?। ডাউনলোড করার জন্য আপনাকে গুগল প্লে স্টোরে চলে যেতে হবে এবং সার্চ অপশন এ টাইপ করতে হবে °ফসলি°তাহলে পেয়ে যাবেন আশা করি। অথবা এখানে ক্লিক করে এক ক্লিকে ডাউনলোড করে নিন।
হ্যালো বন্ধুরা কি খবর সবার ভালো আছেন?
কেউ যদি আমাকে প্রশ্ন করে যে স্বাধীনতার ৪৮ বছর এই সময় ভেতরে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় উন্নয়ন কোনটা অনেকগুলো ক্ষেত্রে বলা যাবে আমি অগ্রাধিকার দেব কৃষি ক্ষেত্রের উন্নয়ন।
অর্থাৎ আমাদের ফসল মূল ফসল ধান তার উৎপাদন প্রায় তিন সাড়ে তিন গুণ বৃদ্ধি পেয়েছে।
যে কারণে কোন মানুষ না খেয়ে নেই কৃষক তার শ্রম মেধা কৃষি বিজ্ঞানী তাদের গবেষণা এবং সম্প্রসারণ বিভাগের কল্যাণে সে সমসর্তর গবেষণার ফলাফল মাঠ পর্যায়ে আসার ফলে এখন যেখানে আগে একটা ফসলের বেশি পাওয়া যেত না এখন সেই জমিতে কৃষক তিনটি চারটি ফসলও করে।
এবং সারা দেশজুড়ে ফসলের একটি ব্যাপক উন্নয়ন ঘটেছে রকমারি ফসল মাঠজুড়ে কৃষকের রয়েছে এগুলো সবই প্রযুক্তির কল্যাণে কাজগুলো হয়েছে।
এখন আধুনিক কৃষি স্মার্ট কৃষি এর যুগ সারা পৃথিবী এগিয়ে যাচ্ছে প্রযুক্তির উৎকর্ষে আধুনিক কৃষির সর্বশেষ সংযোজন নিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে।
বাংলাদেশ সে ক্ষেত্রে কেবল সিউড়িতে পা রেখেছে অর্থাৎ আমি আইওটি বেজ ইন্টারনেট বেজ অথবা এ আই আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বলি বা কৃত্রি বুদ্ধিমত্তা বলি বা ইনফরমেশনের এন্ড টেকনোলজির কথা বলি যার ফলে কৃষকের হাতের মুঠোয় একটি ছোট্ট ফোনের মাধ্যমে এই প্রযুক্তি গুলো চলে আসছে।
সরকারি ভাবে বেশ কিছু অ্যাপস বা কৃষি প্রযুক্তি তৈরি করা হয়েছে মাঠ পর্যায়ে সেগুলি কতটুকু কাজ হচ্ছে আমরা ততটা স্বচ্ছ ধারণা নিই।
সাম্প্রতিক সময়ে বেসরকারি একটি সংগঠন কৃষি নিয়ে যারা কাজ করেন এসিআই তারা কৃষকের জন্য এই জাতীয় ফসলি নামে একটা অ্যাপ তৈরি করেছে যেটি হাতের মুঠোয় স্মার্টফোন থেকে সব ফসলের নানা ধরনের তথ্য পাবেন।
এবং সেই অনুপাতে এবং সেই অনুযায়ী কাজ করলে তার উৎপাদন শীলতা যেমন বাড়বে প্রায়ই কমে আসবে সে আকরাম তথ্য পাবে পোকামাকড় আক্রমণ সংক্রান্ত তথ্য পাবে বৃষ্টি ঝড় বাদল আসবে কিনা সেগুলো পাবে ওয়েদার টেম্পারেচার আবহাওয়া সবকিছু।
এটি সত্যি নিঃসন্দেহে একজন প্রগতিশীল তরুণ এবং সচেতন শিক্ষিত কৃষক এর জন্য অসম্ভব রকমের একটা ক্ষমাই তো করার একটা কৌশল সেই জায়গা থেকে আজকে এই অ্যাপ টি কিভাবে কাজ করছে???
তো চলুন অ্যাপ টি কিভাবে কাজ করে সেটি দেখে আসা যাক।
কৃষকের কৃষি সেবায় নতুন সম্ভাবনা ‘ফসলি’ অ্যাপস
বাংলাদেশের অর্থনীতির প্রধান হাতিয়ার কৃষি। ক্ষুদ্র চাষী, কৃষি উপকরণ ব্যবসায়ী এবং কৃষি সম্প্রসারণ কর্মতর্কাদের সাথে, নির্ভরযোগ্য ও সময়োপযোগী তথ্যসেবা পৌঁছে দিতে, সরকারি পৃষ্ঠপোষকতায় ‘ফসলি (Fosholi)’ নামে একটি বিশেষ অ্যাপস তৈরি করা হয়েছে। যা কৃষকের সব ধরনের সমস্যার তাৎক্ষণিক সমাধান দিতে প্রস্তুত।
কৃষি সংক্রান্ত যে কোন সমস্যার সমাধানে, মোবাইলে এসএমএস ও ফোন কলের মাধ্যমেও পাওয়া যাবে ফসলি’র সেবাসমূহ। ‘ফসলি’ অ্যাপস ব্যবহারের মাধ্যমে কৃষকের জমি-ভিত্তিক শস্যের উপযোগিতা, বিজ্ঞানসম্মত চাষাবাদ পদ্ধতি, পোকামাকড় ও রোগের আক্রমণ বিষয়ক সতর্ক সংকেত, চাষকৃত শস্যের বাজারদর এবং কৃষি কাজের সাথে জড়িত সকল প্রধান বিষয় সম্পর্কিত তথ্য পাওয়া যাবে।
এছাড়াও স্যাটেলাইট ইমেজের মাধ্যমে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে, আবহাওয়ার বাস্তবভিত্তিক পূর্বাভাসও দিচ্ছে ফসলি অ্যাপস।
কৃষকদের কাছে তাদের চাহিদা মাফিক তথ্য সহজে পৌঁছে দিতে ফসলিতে রয়েছে-
১. নিজ নিজ এলাকা ও মাটির গুনাগুণের ভিত্তিতে উপযোগী ফসল নির্বাচন বিষয়ক সেবা।
২. ফসল উৎপাদন এবং রোগবা্লাই ও পোকামাকড়ের আক্রমণ বিষয়ক সঠিক পূর্বাভাস ও তথ্য সেবা।
৩. নিকটস্থ হাট-বাজার, শস্যের বাজারদর ও ফসল সংরক্ষণ বিষয়ক পরামর্শ।
৪. দুর্যোগজনিত কারণে ফসলের ক্ষয়ক্ষতি হ্রাসের লক্ষ্যে পূর্বাভাস ও সতর্কসংকেত প্রদান।
৫. বিশেষজ্ঞ কৃষিবিদদের সহযোগিতায় চাষাবাদ সম্পর্কিত বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর ও পরামর্শ সেবা।
‘ফসলি’ অ্যাপস ব্যবহারের মাধ্যমে এদেশের কৃষকেরা তাদের্ উৎপাদনশীলতা ও আয় বৃদ্ধিতে আধুনিক ও উন্নত হবেন, এই আশা সংশ্লিষ্ট সকলের।






তো চলুন দেখে আসি আপনি কিভাবে ডাউনলোড করা যায়?। ডাউনলোড করার জন্য আপনাকে গুগল প্লে স্টোরে চলে যেতে হবে এবং সার্চ অপশন এ টাইপ করতে হবে °ফসলি°তাহলে পেয়ে যাবেন আশা করি। অথবা এখানে ক্লিক করে এক ক্লিকে ডাউনলোড করে নিন।
তো পোস্টটি ভাল লাগলে লাইক করতে পারেন এবং কমেন্ট করে জানিয়ে দিতে পারেন আপনার মতামত। তো আজকের মত এ পর্যন্তই ছিল দেখা হচ্ছে পরবর্তী পোষ্টে ততক্ষণ পর্যন্ত ভালো থাকুন সুস্থ থাকুন। আর হ্যাঁ পরবর্তী পোস্টটি আরো ইন্টারেস্টিং হতে চলেছে।
তো আজকের মত আল্লাহ হাফেজ সবাই ভাল থাকবেন ধন্যবাদ।
অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করার জন্য এই গ্রুপ এ জয়েন করুন।
আর সাবস্ক্রাইব করুন অফিসিয়াল ইউটিউব চ্যানেল click here to subscribe

Leave a Reply