Walton Primo H9 pro বাংলা রিভিউ | ৮,০০০ টাকায় 4GB RAM & 64 GB Storage কেমনে কি?

গতবার তাদের ওয়ালটন আরএক্স মিনি স্মার্টফোন টিকে বাংলাদেশের মার্কেটে লঞ্চ করে খুব ভালো একটা সাড়া ফেলে দিয়েছিল।
কারণ ৮,০০০ টাকার মধ্যে তারা খুব ভালো একটা পাওয়ারফুল স্মার্টফোন নিয়ে এসেছিল মার্কেটে। এবারও তার ব্যতিক্রম হচ্ছে না।
Walton Primo H9 pro স্মার্টফোনটি বর্তমান বাংলাদেশের মার্কেটে পাওয়া যাবে মাত্র ৭,৪৯৯ টাকায় অর্থাৎ অনলাইনে আপনারা অর্ডার করতে পারবেন।
4-64 ভেরিয়েন্ট এ পাওয়া যাবে অর্থাৎ স্মার্টফোনটি অর্থাৎ ৪ জিবি র্যাম এর পাশাপাশি ৬৪ জিবি ইন্টারনাল মেমোরি থাকছে ফোনটির মধ্যে।


Walton Primo H9 pro স্মার্টফোনের সকল ডিটেলস তুলে ধরছি আপনাদের মাঝে এবং কেন ৮,০০০ টাকার মধ্যে আপনার জন্য বেস্ট হতে পারে এই ডিভাইস টি।সেটাও জানতে পারবেন আজকের পোস্টের মাধ্যমে!


তো প্রথমে শুরু করছি ফোনটা ডিজাইন এবং বিল্ড কোয়ালিটি থেকে,
গ্রেডিয়েন্ট টাইপের ডিজাইনের সাথে এবার ওয়ালটন তাদের স্মার্টফোন নিয়ে এসেছে মার্কেটে এখানে H9 প্রো স্মার্টফোন এর পিছনে থাকছে প্লাস্টিক ব্যাক কভার এবং পুরো ফোনটি প্লাস্টিকের তৈরি।
যেটা কেন বাজেট অনুযায়ী খারাপ বলা চলে না।

এছাড়াও রয়েছে ৬.১ ইঞ্চির আইপিএস এলসিডি এইচডি প্লাস ডিসপ্লে ব্যবহার করা হয়েছে ফোনটির ফন্ট সাইডে, আর এ ফোনের ডিসপ্লের নচ টি হচ্ছে খুবই ছোটযেখানে চিনা ৮ মেগাপিক্সেল এর সেলফি ক্যামেরা ইউজ করেছে ওয়ালটন।

আর এই ডিসপ্লেটির চারপাশ হচ্ছে গিয়ে ২.৫ দি কারফ তাই অবিয়েসলি খুব ভালো একটি ডিসপ্লে অফার করছে ওয়ালটন। ডিসপ্লের প্রোটেকশন হিসেবে ঠিক কোনটা ইউজ করেছে ওয়ালটন সেটা জানা যায়নি।
তাই অবশ্যই ব্যাক কভার এর পাশাপাশি ফোনটিটিতে একটি গ্লাস প্রোটেক্টর ইউজ করা ভালো হবে।


এছাড়া রয়েছে মিডিয়াটেক হেলিও a22 প্রসেসর ইউজ করা হয়েছে ফোনটির প্রসেসর হিসেবে, যেটা বাজেট অনুযায়ী কোনো কমপ্লেন থাকছেনা ঠিকঠাকই ছিল।
তেমন হাইলেবেলের কোন পারফরম্যান্স না পাওয়া গেলেও রেগুলার টাস্ক রয়েছে সেগুলো খুবই স্মুথলি হ্যান্ডেল করতে পারবেন। কারণ ফোনটির মধ্যে আপনারা ৪ জিবি র্যাম এর সাপোর্ট পাচ্ছেন।


গেমিং এর ক্ষেত্রেও ফোনটি বেশ ভালই পারফর্ম করবে এর বাজেট অনুযায়ী , আমি পাবজি মিডিয়াম গ্রাফিক্সে খেলেছি হালকা ফেম ড্রপ পেয়েছি তবে সেটা খেলা যায়।
ফ্রী ফায়ার ট্রাই করেছিলাম কোনো প্রবলেম ফেস করিনি মোটামুটি ভালই চলছিল।

সফটওয়্যার হিসেবে ফোনটির মধ্যে থাকছে অ্যান্ড্রয়েড ১০ যদিও ওয়ালটন বলছে তারা ভবিষ্যতে সফটওয়্যার আপডেট ক্লেম করবে মানে ভবিষ্যতে অ্যান্ড্রয়েড ১১ পাবেন ফোনটিতে।


এবার ক্যামেরার পালা ক্যামেরা সেকশনে ওয়ালটন ব্যবহার করেছে একটি ১৩ মেগা পিক্সেলের সনি সেন্সর
এটা কিনা মেইন সেন্সর হিসেবে ব্যবহার করা হয়েছে, তার সঙ্গে ফাইভ মেগাপিক্সেল এর আল্ট্রা ওয়াইড এবং নামেমাত্র ০.৩ মেগা পিক্সেলের ডেপ সেন্সর থাকছে ফোনটির রেয়ার প্যানেল এ।
এই ক্যামেরা থেকে দিনের বেলা মোটামুটি লেভেলের ছবি তুলতে পারবেন বাজেট অনুযায়ী।
ভিডিও রেকর্ডিং এর সর্বোচ্চ 1080p – 30 FPS এ ভিডিও রেকর্ড করতে পারবেন!

ফোনটিতে আর সাইডে থাকছে একটি ফিজিক্যাল ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। ৪,০০০ মিলি এম্পিয়ার ব্যাটারির পাশাপাশি ফাইভ ওয়ার্ড এর চার্জিং নিয়ে আসে ওয়ালটনের এই স্মার্টফোনটি।

তাই অভিয়েসলি প্রায় তিন ঘণ্টার মতো সময় নিবে ফোনটা ফুল চার্জ করতে, আর ব্যাটারি ব্যাকআপ পাওয়া যাবে প্রায় দুই দিনের মতো।
ফোনটি অনলাইনে কেনা যাবে ০১৮৬৫৭৩৩২৪০ এই নম্বরে ফোন করে।

আজকের মতো এই পর্যন্তই ছিল দেখা হচ্ছে পরবর্তী কোন পোস্টে সবার সঙ্গে ভালো থাকুন আল্লাহ হাফেজ।

Leave a Reply