আমার চোখে সেরা ৫টি বাংলা ক্রাইম থ্রিলার মুভির | দ্বিতীয় পর্ব | সাথে থাকছে আমার রিভিউ।

থ্রিলার হলো বাংলা ইন্ডাস্ট্রির জন্য আলোর দিশা, মূলত বিগত ১০ বছরের দারুন কিছু কাজে বাংলা থ্রিলার সিনেমা বিকশিত রূপ লাভ করেছে।
আর এই সময় দাঁড়িয়ে থ্রিলার সিনেমার চাহিদা আকাশচুম্বী তা বলার বাকি রাখে না।
সেই পরিপ্রেক্ষিতেই প্রতিবছর অনেক থ্রিলার সিনেমা তৈরি হলেও মানসম্পন্ন কাজ সেই তুলনামূলক কম হয়। তবে এর মধ্যে কিছু সিনেমা সেরার খাতায় নাম লেখায়।
এমনি ই ৫টি বাংলা থ্রিলার সিনেমার দ্বিতীয় পর্ব এর লিস্ট নিয়েই আমার আজকের আয়োজন।
এই টপিকের প্রথম পর্বের লিংক এখানে দেওয়া হলো চাইলে দেখে আসতে পারেন।

৫। মেঘনাথ বদ রহস্য।
একজন ফিকশনাল লেখক এর চারপাশে ঘটে যাওয়া কিছু অদ্ভুত ঘটনা নিয়েই মূল গল্পের শুরু কিন্তু তার সাথে এসব অদ্ভুতুড়ে ঘটনা ঘটার কারণ কি? তাকে কি কেউ খুন করতে চাই।
বা এসব ঘটনার মূল উৎস কি সিনেমাটি প্রথম দিকে বেশ ভালোভাবেই স্টরি বিল্ড আপ শুরু করে, তবে সিনেমার মাঝে টুইস্ট টা পুরা সিনেমার মোড় ঘুরিয়ে দেয়।

পুরো সিনেমা জুড়ে এক অজানা রহস্য বিরাজ করে, সিনেমাতে বেশকিছু লেয়ার আছে।
কিছু ঘটনার নকশাল আন্দোলনের সাথে ও জড়িত মেঘনাথবধ রহস্য নামের এই সিনেমার মূল থিংক কিছুটা মেঘনাথবধ কাব্য সাথেও সম্পর্কিত।
এছাড়াও সিনেমার দারুন এক্সিকিউশন সিনেমা দেখার সময় আপনার কিউরি সিটি অনেকটা বাড়িয়ে দিবে। তাই ব্যতিক্রমী কিছু দেখতে চাইলে সিনেমাটি মিস করবেন না।

৪। এইটি নাইন
একজন সাইক্রেটিস যিনি নিজে মানুষের ট্রমার মধ্যে দিয়ে যাচ্ছেন ব্যাপারটা একটু অদ্ভুত শোনায় না? তার এই ডিপ্রেশন থেকে মুক্তি পেতে জেলে ইন্টারভিউ করতে আসেন মেন্টালি আনস্টেবল এক ইন্টালিজেন্ট সিরিয়াল কিলারের ‌।

হঠাৎ করে বেরিয়ে আসতে থাকে নানা রহস্য কি ঘটেছিল তাদের জীবনে! কেনই বা তারা মেন্টালিটি এতটা ডিস্টার্ব এরকমই রহস্যময় প্রশ্নের মুখোমুখি হতে থাকবেন এইটি নাইন নামক বাংলার অন্যতম সেরা এই সাইকোলজিকাল থ্রিলার সিনেমায়।
গল্পের তীব্রভাবে আবেগ ঘৃণা ও মানসিক অবসাদ এর মত বিষয়গুলো উঠে এসেছে বিশেষ করে ক্লাইমেক্সের আগ পর্যন্ত আপনার সঙ্গে যে মাইন্ড গেম চলবে তা আপনাকে হয়রানি করতে বাধ্য।

ডিরেক্টর গল্পটি কে দারুন ভাবে এক্সিকিউট করেছে সিনেমার সিনেমাটোগ্রাফি বিজিএম ক্যামেরা ওয়ার্ক সবকিছুতেই নিপুণতার ছাপ স্পষ্ট, এই সিনেমার সব থেকে বড় প্লাস পয়েন্ট হল শাশ্বত চট্টোপাধ্যায় আর রাইমা সেন বিশেষ করে তাদের অভিনয় ছিল নজর কাড়ার মতো তাই থ্রিলার প্রেমী হলে সিনেমাটি আপনার দেখা মাস্ট ওয়াচ।


৩। Vinci Da (2019)
https://www.justdial.com/streaming/watch-movies-online/Vinci-Da/1559807541839
ভিঞ্চিদা সিনেমা দিয়ে শ্রীজিৎ মুখার্জী দীর্ঘদিন পরে থ্রিলার জগতে ব্যাক করেছিলেন এবং বাজিমাত ও করেছিলেন।
একজন মেক-আপ আর্টিস্টের গল্প যে কিনা একজন সিরিয়াল কিলারের সঙ্গে নিজের অজান্তেই একটি ক্রাইম এর সঙ্গে জড়িয়ে পড়তে থাকে।
কিন্তু কিভাবে এবার কি সে এইসব থেকে বের হয়ে আসতে পারবে কেনই বা সেই সিরিয়াল কিলার পরপর এতক্ষণ করে যাচ্ছে।

এমনই কিছু প্রশ্নের উত্তর মিলবে ভিঞ্চিদা নামের এই সিনেমায় শ্রীলাল এর সঙ্গে শ্রীজিৎ মুখার্জীর কম্বিনেশন হলে তা যে মাস্ট ওয়াচ সিনেমার তালিকায় পড়ে যায় তা নিশ্চয়ই বলার অপেক্ষা রাখে না।
একটি পারফেক্ট ক্রাইম থ্রিলার হিসেবে এই সিনেমাটা একেবারেই আদর্শ একটি সিনেমা আর জানা গেছে সিনেমাটি মালায়লাম ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে রিমেক করা হবে।

২। আলিনগরের গোলকধাঁধা।
ইতিহাসের সঙ্গে মিশে আছে রহস্য কথাটি আলিনগরের গোলকধাঁধা সিনেমার ক্ষেত্রে বেশ প্রযোজ্য।
ঐতিহাসিক প্রেক্ষাপট কে কেন্দ্র করে নির্মিত এই সিনেমাটি দারুন এক ইন্টারটেনমেন্ট প্যাকেজ,

থ্রিলার এর সঙ্গে রয়েছে প্রেম বা বন্ধুত্ব ফ্যামিলি ইমোশন সামান্য কমেডি আর দারুন গল্প তবে সবচেয়ে বড় প্লাস পয়েন্ট হল ডিটেলস এক্সপ্রেশন।
বাংলার ইতিহাস নিয়ে এত বেশী তথ্য এই সিনেমায় তুলে ধরা হয়েছে যা আপনি আগে কোন সিনেমায় দেখেনি গ্যারান্টি দিলাম। বিশেষ করে ইতিহাসের সঙ্গে রহস্য উন্মোচন বিষয়টি বেশ দারুন ছিল।

আর আপনি সিনেমাটি দেখার সময় বাংলা ইতিহাস সম্পর্কে অনেক কিছু জানতে পারবেন সবথেকে বড় বিষয় হলো সিনেমাটি আপনি বসে উপভোগ করতে পারবেন।
প্রতিটি সিনেমা প্রেমের জন্য এটি একটি মাস্টওয়াচ সিনেমা।

১। কাবির।
নিজের সুপারস্টার ইমেজকে ভেঙে দেব যেসব এক্সপেরিমেন্টাল কাজ করেছেন তার মধ্যে সেরা হল কাবির।
বলা যেতে পারে বাংলা সিনেমার অন্যতম সেরা কাজ হল কাবির কাবির এমন একটি সিনেমা যা সবার জন্য নয়। সত্য বললে এই সিনেমার মর্ম সবাই বুঝতে পারবে না।

এতটাই সেনসিটিভ টপিক নিয়ে সিনেমা করা যা হয়তো বাংলা ইন্ডাস্ট্রির ক্ষেত্রে একটা সময় চিন্তাই করা যেত না! তবে যদি টিপিকাল দেশভক্তি সিনেমা মনে করেন।
তাহলে সত্যিই আপনি ভুল করবেন।

সত্য ঘটনা অবলম্বনে সিনেমাটি বানানো হয়েছে এবং সিনেমাটিকে যথা ধ্বনি বাস্তব রূপ করা হয়েছে। পুরা সিনেমার অধিকাংশই ডকুমেন্টারি টাইপে শুট করা হয়েছে।
মূলত ধর্মীয় গোঁড়ামি হিন্দু মুসলিম দাঙ্গা টেরোরিস্টের কিছু বিষয় দারুন ভাবে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে এই সিনেমায়।
এছাড়া এক চাপা উত্তেজনায় ঠাসা থ্রিলার তো রয়েছেই বক্সঅফিসে বেশ সুবিধা করতে না পারলেও ভবিষ্যতে গিয়ে এটা যে কাল সিনেমা বিবেচিত হবে তা বলাই বাহুল্য।

তো এই ছিল আমার চোখে সেরা ৫টি রোমাঞ্চকর বাংলা থ্রিলার যদিও এর বাইরেও অনেক ভালো থ্রিলার আছে তবে তবে আমার চোখে এগুলো সেরার তালিকায় ছিল।
এ পোস্ট এর পরবর্তী পার্ট মানে তৃতীয় পর্ব চান কিনা কমেন্ট বক্সে কমেন্ট করুন।

বিঃদ্রঃ Vinci Da মুভি ইউটিউব এ কপি রাইট ইস্যুর জন্য নাই, যার জন্য দিতে পারলাম না।

আমার পরবর্তী পোস্ট একটু ইন্টারেস্ট হতে চলেছে পোস্ট লেখালেখি চলছে শীঘ্রই চলে আসবে কিভাবে আপনার ওয়ার্ডপ্রেস সাইটে গুগল এনালাইটিক্স ইনস্টল করবেন।
সবশেষে জানাতে পারেন পোস্টটি কেমন লাগলো ভাল লাগলে একটি লাইক করুন এবং শেয়ার করে আপনার ফ্রেন্ড সার্কেলের মধ্যে ছড়িয়ে দিন।
আমার অফিশিয়াল ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন। এবং ।জয়েন করুন আমার ফেসবুক গ্রুপে
গ্রুপে অবশ্যই জয়েন করুন সবার কাছে অনুরোধ রইলো।

অনেকে আমার ফেসবুক আইডির লিংক চাচ্ছিলেন তো তাদের কথা চিন্তা করে নতুন একটি ফেসবুক একাউন্ট খুলেছি। Facebook.Com/Anamika 016
ভালো থাকুন সবাই আল্লাহ হাফেজ।

Leave a Reply