ভারত এবং বাংলাদেশ থেকে অস্কার ছিনিয়ে নিবে যে দুটি সিনেমা | ইতি তোমারই ঢাকা & জাল্লিকাট্টু অস্কার পাবে ২০২১ সালে।

৯৩ তম একাডেমি বা অস্কারের বাংলাদেশ ও ভারত থেকে দুটি সিনেমা মনোনীত করা হয়েছে, আর এই দুইটি সিনেমা আদতেই কেমন তার একটি বিস্তারিত রিভিউ নিয়ে আজ আমি হাজির হয়েছি।


১। এবার বাংলাদেশ থেকে অস্কারের প্রতিনিধিত্ব করবে *ইতি তোমারই ঢাকা* এই সিনেমাটি বাংলাদেশের প্রথম অ্যান্থোলজি ফিল্ম।
মোট ১১ টি গল্প বা শর্ট ফিল্ম এর সমন্বয়ে গঠিত হয়েছে ইতি তোমারই ঢাকা,

সিনেমাটি বাংলাদেশের এগারোটা ডিরেকটর ডিরেকশন দিয়েছে এই সিনেমায় যে ১১ টি গল্প রয়েছে, তারমধ্যে অন্তমিল হচ্ছে ঢাকা শহর।

প্রতিটি গল্পের দৈর্ঘ্য ১০ থেকে ১২ কিংবা ১৩ মিনিট, বলা যেতে পারে শহরে বাস করা মানুষের জীবন সংগ্রাম নিয়েই গড়ে উঠেছে প্রতিটি গল্প।

এই সিনেমার প্লাস পয়েন্ট হচ্ছে প্রতিটি গল্পের লিট ক্যারেক্টারের থাকা অভিনেতাদের অভিনয়। আর কিছু গল্প সত্যি অনেক ভালো ছিল।
তবে কিছু গল্প আপ টু দ্যা মার্ক ছিলনা, টেকনিক্যাল কাজগুলো চেষ্টা করা হয়েছে যথাসাধ্য ভালো করবার।

তবে এ ক্ষেত্রে কিছুটা সফল আবার কিছুটা ব্যর্থ, তবে সিনেমা গুলোর প্লট গুলো তুলনামূলক রিয়ালিস্টিক থাকায় অনেক গল্প সাথেই হয়তো নিজেকে কানেক্ট করতে পারবেন।

এই সিনেমাটি প্রায় ২৫ টির বেশি ইন্টারন্যাশনাল ফিল্ম ফেস্টিভ্যালে প্রদর্শিত হয়েছে এবং রীতিমত অনেক প্রশংসা কুড়িয়েছে।
তো এখন দেখার বিষয় অস্কারে এই সিনেমার ভাগ্য কতটা সুপ্রসন্ন হয়।


২। একটি মহিষ ছুটছে গ্রামকে প্রায় লন্ডভন্ড করে দিচ্ছে, আর সেই মহিষ কে ধরার জন্য গ্রামের মানুষ ছুটছে।
আক্ষরিক অর্থে বলতে গেলে মূলগল্প এটি ই খুবই সাধারণ গল্প মনে হচ্ছে কি???

আদতে কিন্তু মোটেও এমন নয় সিনেমাটি ২০২১ অ্যাকাডেমি অ্যাওয়ার্ডে, ইন্ডিয়াকে প্রতিধ্বনিত করবে। সিনেমার নাম জাল্লিকাট্টু

মালায়লাম মাস্টারপিস এই সিনেমাটির প্রেজেন্টেশনের জন্য দিরেক্টর সত্যি স্যালুট প্রাপ্ত। একটি আপাত দৃষ্টির সাধারণ ঘটনার মাঝে দারুন কিছু লেয়ার যোগ করে অসাধারণ একটি মেসেজ দিয়ে সিনেমাটি উপস্থাপন করা হয়েছে।

যা আপনারা দেখলে রীতিমত অবাক হয়ে যাবেন, নামমাত্র গল্প দিয়ে যে ইন্টারন্যাশনাল লেভেলের সিনেমা বানানো যায় তা মালায়লাম ইন্ডাস্ট্রি প্রমাণ করে দিচ্ছে।

সিনেমার প্রচুর প্লাস পয়েন্ট রয়েছে যার মাঝে সিনেমাটোগ্রাফি অন্যতম, রয়েছে তার লাগানোর মত ক্যামেরা ওয়ার্ক আর দুর্দান্ত বিজিএম যা আপনাকে প্রতি সেকেন্ডে থ্রিল্লের মাঝে রাখবে।

সিনেমা স্ক্রিনপ্লে খুবই টাইট, কোন অপ্রয়োজনীয়’ সিন নেই অশুদ্ধ বা মনুষ্যত্ব এর মাঝে এক দারুন ধাঁধা এ ফেলে সিনেমাটি যখন এগোতে থাকে, তখন আপনিও যেন পশু মানুষের এই খেলাই সঠিক দল কে বেছে নিতে ধাঁধায় পড়ে যাবেন।

প্লিজ 🙂 সবাই আমার ইউটিউব চ্যানেল থেকে একটু ঘুরে আসুন এবং একটি সাবস্ক্রাইব করে দিন।😍

শেষ করছি আমার আজকের পোষ্ট পোস্টটি ভাল লাগলে অবশ্যই লাইক করুন শেয়ার করুন আর অবশ্যই আমার ইউটিউব চ্যানেলটি সাবস্ক্রাইব করে আসবেন।

পরবর্তী কোন টপিকের উপর পোস্ট চান তা কমেন্ট করে অবশ্যই জানান, ফিরে আসছি পরবর্তী পোষ্টে ততক্ষণ পর্যন্ত ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন আল্লাহ হাফেজ।

Leave a Reply