পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার আগে

অনেক সময় আমাদের আর্থিক সমস্যা বা অন্য কোনো সমস্যার কারণে নতুন ফোন কেনা সম্ভব হয়না। কিন্তু প্রযুক্তির এই যুগে সকলের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে স্মার্টফোন না হলেই নয়। তাই আমরা অনেক সময় পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কিনে থাকি। পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার জন্য অনেক মার্কেটপ্লেস রয়েছে।

এখন আপনি যদি কোনো পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কিনতে চান তাহলে আপনাকে কিছু বিষয় অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে। না হলে হতে পারেন চরম ক্ষতির সম্মুখীন। আপনি যাতে পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন কিনে ক্ষতির সম্মুখীন না হন তার জন্য আজকের এই পোস্টটি মনোযোগ সহকারে পড়বেন।

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন কেনার আগে যেসব বিষয় খেয়াল রাখবেন

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন যেমন কম খরচে আপনার প্রযুক্তি ব্যবহারের সাদ মিটাবে পাশাপাশি পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন কিনে ঠকে যাওয়ার নজির ও রয়েছে অনেক। তাই পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন কেনার আগে অবশ্যই নিচে বর্ণিত বিষয়গুলো ভালোভাবে দেখে নিবেন।

ফোনটি চোরাই ফোন কিনা

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার আগে এ বিষয়টি সব থেকে বেশি গুরুত্ব দিয়ে যাচাই করবেন। খেয়াল রাখবেন কেউ যেন আপনাকে চোরাই বা নকল স্মার্টফোন ধরিয়ে দিতে না পারে। সেক্ষেত্রে হয়তো আপনি পরবর্তীতে চরম হয়রানির সম্মুখীন হতে পারেন।

তাই আমি বলবো আপনি পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার সময় অবশ্যই বক্স সহ কিনবেন। আর সেই সাথে বিক্রেতা যে দোকান থেকে স্মার্টফোনটি কিনেছে সেই দোকানের রশিদ থাকলে তো কথাই নেই।

ফোনের ওয়ারেন্টি আছে কিনা

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার সময় অন্যতম একটি গুরুত্বপূর্ণ বিবেচনার দিক হচ্ছে ফোনটির ওয়ারেন্টি আছে কিনা। আর কোথা থেকে ওয়ারেন্টি পাবেন? বাংলাদেশ ওয়ারেন্টি এভেলেবেল কিনা? সকল বিষয় বিক্রেতার কাছ থেকে জেনে নিবেন। আর হ্যাঁ মনে করে অবশ্যই ওয়ারেন্টি কার্ডটি নিয়ে নিবেন। আর যদি সম্ভব হয় তাহলে‌ বিক্রেতার ন্যাশনাল আইডি কার্ডের ফটোকপি সংগ্রহ করে রাখবেন।

সফটওয়্যার টেস্ট

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার সময় ফোনটির সফটওয়ারের কোন সীমাবদ্ধতা আছে কিনা তা অবশ্যই খেয়াল রাখবেন। অনেক সময় দেখা যায় পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন রুট করা থাকে। আবার রুট করা থাকলে ওয়ারেন্টি থাকলেও কোম্পানিগুলো ওয়ারেন্টি দেয় না। তাই অবশ্যই চেক করবেন আপনি যে ফোনটি কিনতে চাচ্ছেন সেটি রুট করা কিনা। এবং যদি রুট করা থাকে তাহলে কম্পানি ওয়ারেন্টি দেবে কিনা।

প্লে স্টোরে রুট চেকার নামে অনেক অ্যাপস পাবেন যার মধ্য থেকে যে কোন একটি ইন্সটল করে চেক করে নিতে পারবেন।

হার্ডওয়ার জনিত সমস্যা

অনেক সময় দেখা যায় পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন বিক্রয় এর অন্যতম কারণ হয় হার্ডওয়্যারের সমস্যা। অনেক সময় ফোন দেখতে বাহির থেকে সম্পূর্ণ ঠিক লাগলেও দেখা যায় পড়ে যাওয়া বা অন্য কোন কারণে ফোনের বিভিন্ন হার্ডওয়ার কাজ করা বন্ধ করে দেয়। তাই শুধু দেখতে ভালো হলেই হবেনা এর সব হার্ডওয়ার ঠিকভাবে কাজ করছে কিনা সে বিষয়টিও ভালোভাবে চেক করতে হবে।

অনেক সময় দেখা যায় ফোনের সক থাকে। তাই ফোনের অনেক ধরনের হার্ডওয়ার যেমন ক্যামেরা সেন্সর, ব্লুটুথ সেন্সর বা ওয়াইফাই কাজ করে না।আপনি প্লে স্টোরে গিয়ে হার্ডওয়ার যে কার নামে অনেক অ্যাপস পাবেন যার থেকে যেকোন একটি ডাউনলোড করে চেক করে নিতে পারবেন।

ফোনটি সার্ভিসিং করা হয়েছে কিনা

পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কেনার আগে অন্যতম একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে ফোনটি সার্ভিসিং করা হয়েছে কিনা। অনেক সময় দেখা যায় পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন বিক্রেতা ফোনটিকে সার্ভিসিং করাতে করাতে হাঁপিয়ে ওঠেন। তাই তিনি কোন ফোনটিকে বিক্রি করতে চান।

আমার নিজস্ব মতামত হল সার্ভিসিং করা ফোন থেকে কমপক্ষে তিন হাত দূরে থাকবেন। কেননা আপনি কখনোই সার্ভিসিং করানো ফোন চালিয়ে মজা পাবেন না।

ব্যাটারী অরিজিনাল কিনা

পুরাতন ফোন বিক্রির অন্যতম কারণ হতে পারে ফোনের ব্যাটারি ভালো ব্যাকআপ দেয় না। তাই পুরাতন ফোন কেনার আগে অবশ্যই ফোনটির ব্যাটারি চেক করে নিবেন। অফিশিয়াল ব্যাটারি আছে কিনা সে বিষয়টিও চেক করে নিবেন।

ফোনটি কার কাছ থেকে কিনছেন

এবার আসি আসল কথায়। পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড ফোন কেনার সময় অবশ্যই নিজের চেনা জানা কারো কাছ থেকে কেনার চেষ্টা করবেন। যাতে পরবর্তীতে হয়রানির শিকার না হতে হয়। আর অনলাইন থেকে কেনার ক্ষেত্রে অবশ্যই বিক্রেতার সাথে দেখা করুন।

শেষ কথাঃ

আপনি যদি একটি পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কিনতে চান তাহলে অবশ্যই উপরে আলোচিত বিষয়গুলো খুব মনোযোগ সহকারে বারবার পড়ে নিশ্চিত হয়ে একটি পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন কিনতে পারেন। তবে সব শেষ বলছি পুরাতন বা সেকেন্ড হ্যান্ড স্মার্টফোন না কেনাই ভালো। যথাসম্ভব চেষ্টা করবেন নিজের বাজেটের মধ্যে খুব ভালো না হলেও মোটামুটি একটি নতুন স্মার্টফোন কেনার।

আমার ইউটিউব চ্যানেল পোস্টটি ভালো লাগলে অবশ্যই ঘুরে আসবেন।

Leave a Reply